আবারও জাবি উপাচার্যের কার্যালয় ঘেরাও 

0
1074

আরিফুল ইসলাম আরিফ, জাবি প্রতিনিধি: দীর্ঘ চার মাস সিন্ডিকেট সভা না হওয়া, নতুন শিক্ষক নিয়োগ না দিয়ে সিন্ডিকেট সভা আহবান করে স্থগিত বিষয় গুলোর সমাধানের দাবি সহ শিক্ষকগণের পদোন্নতি আটকে থাকা,শিক্ষার্থীদের ডিগ্রী ও গুরুত্বপূর্ণ সনদ সহ বিভিন্ন বিষয় স্থগিত থাকার প্রতিবাদে জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ে (জাবি) বঙ্গবন্ধুর আর্দশ ও মুক্তিযুদ্ধের চেতনায় বিশ্বাসী প্রগতিশীল শিক্ষক সমাজের একাংশ উপাচার্যের কার্যালয় ঘেরাও ও অবরোধ কর্মসূচি পালন করেছে।

রবিবার সকাল ৮:৩০টা থেকে শুরু হওয়া এই অবরোধ ঘেরাও কর্মসূচিতে উপাচার্য বিরোধী প্যানেলের বিভিন্ন বিভাগের শিক্ষকগণ অংশ নেন। এদিকে অবরোধ কর্মসূচির ফলে প্রশাসনিক গুরুত্বপূর্ণ কাগজ ও ফাইল স্বাক্ষর করা সহ গুরুত্বপূর্ণ কাজ সম্পন্ন করা সম্ভব হয়নি।

আন্দোলনকারী শিক্ষকদের একাংশের মুখপাত্র ও সংগঠনের সাধারণ সম্পাদক ফরিদ আহম্মেদ জানান “বার বার প্রশাসনের নানা অনিয়মের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ জানালেও সমস্যা সমাধানে আজ পর্যন্ত কোন আলোচনা ও সঠিক পদক্ষেপ গ্রহণ করেনি। রমজান মাসে আমাদের সিদ্ধান্ত ছিল কোন আন্দোলনে যাব না। কিন্তু একটি বিভাগে ৩৪ জন শিক্ষক থাকার পরও অযাচিতভাবে নতুন ৪ জন শিক্ষক নিয়োগের পয়তারা করছে প্রশাসন। যেটা বিশ্ববিদ্যালয়ের নিয়ম বহির্ভূত। আমাদের যৌক্তিক দাবি না মানা পর্যন্ত আন্দোলন চালিয়ে যাব”


জাবি উপাচার্য অধ্যাপক ড. ফারজানা ইসলাম এ বিষয়ে বলেন, একটি বিশ্ববিদ্যালয়ে অবরোধ কর্মসূচি কখনও ভালো কিছু বয়ে আনেনা। আলোচনার পথ খোলা আছে সব সময়। তারা (আন্দোলনকারী শিক্ষকগণ) তো আর বাইরের কেউ নন আমাদেরই শিক্ষক সুতরাং সমস্যার সমাধান অবশ্যই আছে।

শিক্ষক নিয়োগের ব্যাপারে তিনি বলেন, একটি বিভাগে পর্যাপ্ত শিক্ষার্থীর প্রয়োজন অনুযায়ী শিক্ষক নিয়োগ হয়ে থাকে। তাই এটি নিয়ে দল ভিত্তিক রাজনীতি করার কিছু নাই। তারাঁ (আন্দোলনকারী শিক্ষকগণ) যেহেতু আপত্তি জানিয়েছে তাই আজকের মতো নিয়োগ বোর্ড স্থগিত করা হয়েছে।

উল্লেখ্য, বর্তমান জাবি উপাচার্য পুন:নিয়োগ লাভের পর থেকেই উপাচার্য বিরোধী শিক্ষক প্যানেল বঙ্গবন্ধুর আর্দশ ও মুক্তিযুদ্ধের চেতনায় বিশ্বাসী শিক্ষক সমাজের একাংশ বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক লাঞ্ছনার বিচার, উপাচার্যের অ্যাক্ট, স্ট্যাটিউট ও সিন্ডিকেট পরিচালনা বিধি লঙ্ঘনের প্রতিবাদ, প্রক্টরিয়াল বডির অপসারণ ও জাকসু নির্বাচনের দাবি সহ নানা অনিয়ম বিরুদ্ধে আন্দোলন করে যাচ্ছে বর্তমান প্রশাসনের বিপরীতে।

#বাংলাটপনিউজ/আরিফ