মির্জাপুরে পাওনা টাকা চাওয়ায় গোপনাঙ্গে আঘাত করে হত্যা !

0
480

মির্জাপুরে জামুর্কী ইউনিয়নের বাদাইমা বাজারে পাওনা টাকা চাওয়ায় আশরাফ মোল্লা নামে এক ব্যক্তিকে পিটিয়ে হত্যা করা হয়েছে। নিহত আশরাফ মোল্লা একই ইউনিয়নের চুকুরিয়া গ্রামের মৃত এলহাম মোল্লার ছেলে। এ ঘটনায় রোববার সন্ধ্যায় নিহতের স্ত্রী মর্জিনা বেগম বাদী হয়ে ৫ জনকে আসামি করে (ছবুর মিয়া (৫৫), আওয়াল মিয়া (৫০), আব্বাস মিয়া (৪৮), জিয়ারত মিয়া (৫৩) ও ছবুর মিয়ার ছেলে খাজা মিয়া (২২)) মির্জাপুর থানায় হত্যা মামরা দায়ের করেছেন। পরে পুলিশ ঘটনার সঙ্গে জড়িত থাকার অভিযোগে একজনকে গ্রেফতার করে।

পুলিশ জানায়, বেশ কয়েক দিন আগে নিহত আশরাফ পাশের কাটরা টুকরাপাড়া গ্রামের সবুর মিয়ার কাছে জমি বিক্রি করেন। সেই জমি বিক্রির ২৪ হাজার টাকা বাকি ছিল। দীর্ঘদিন ধরে বিভিন্ন অযুহাতে সবুর মিয়া ওই টাকা না দিয়ে আশরাফকে হয়রানি করতে থাকেন। সর্বশেষ শনিবার সন্ধ্যায় পাওনাদার আশরাফ দেনাদার সবুরকে বাদাইমা বাজারে দেখতে পেয়ে ওই টাকা দাবি করেন। এ নিয়ে কথা কাটাকাটির একপর্যায় দুইজনের মধ্যে হাতাহাতি হয়। এ সময় সবুর আরশাফের গোপনাঙ্গে আঘাত করলে তিনি মাটিতে লুটিয়ে পড়েন।

স্থানীয়রা আশরাফকে উদ্ধার করে প্রথমে মির্জাপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে পরে টাঙ্গাইল জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। এসময় নিহত আশরাফ মোল্লার স্বজনরা সবুরের ছোট ভাই আওয়ালকে আটক করে পুলিশে দেন।

মির্জাপুর থানা পুলিশের পরিদর্শক (তদন্ত) শ্যামল কুমার দত্ত জানান, একজনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। তাছাড়া প্রধান আসামি ছবুর মিয়াসহ বাকিরা পলাতক রয়েছে।