পরিবর্তনের জন্য জাতীয় ঐক্যর বিকল্প নেই: ড. কামাল

0
45

গণফোরাম সভাপতি ড. কামাল হোসেন বলেছেন, “রাষ্ট্র ও সমাজ ব্যবস্থার অর্থবহ পরিবর্তনে গোটা জাতিকে ঐকবদ্ধ হওয়া এখন সময়ের দাবি। দেশের গণতন্ত্র সার্বভৌমত্ব ও স্বাধীনতার সুরক্ষার জন্য জনগণকেই দায়িত্ব নিতে হবে। এজন্য জাতীয় ঐক্যের বিকল্প নেই।”

মঙ্গলবার সকালে যশোর বিমানবন্দর থেকে খুলনা যাওয়ার পথে প্রেসক্লাব যশোরের ভিআইপি লাউঞ্জে যাত্রাবিরতিকালে সাংবাদিকদের সঙ্গে মতবিনিময় সভায় তিনি এসব কথা বলেন। ড. কামাল বলেন, “জনগণই হচ্ছে দেশের সব কিছুর মালিক। সেহেতু দেশের মালিকানা প্রতিষ্ঠার জন্য জাতীয় ঐক্যর কোনো বিকল্প নেই।”

এ সময় জাতীয় সমাজতান্ত্রিক দল (জেএসডি) সভাপতি আ স ম আব্দুর রব বলেন, “জাতীয় ঐক্যকে বিতর্কিত করতে একিউএম বদরুদোজ্জা চৌধুরীকে ঘিরে যে অপপ্রচার হচ্ছে তা সঠিক নয়। তিনি আমাদের সঙ্গে আছেন এবং থাকবেন।”

সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, “সরকারের পক্ষ থেকে যুক্তফ্রন্টের দাবিকে অসাংবিধানিক বলা হয়েছে। অথচ এর আগে আওয়ামী লীগ তত্ত্বাবধায়ক সরকারের দাবিতে ১২৭ দিন হরতাল করেছিল, ক্ষমতায় থেকে বাকশাল কায়েম করেছিল, বিনা ভোটের মাধ্যমে ক্ষমতায় এসেছে। আমার প্রশ্ন এগুলো কী সবই সাংবিধানিক ছিল?”

এ সময় আরও উপস্তিত ছিলেন- নাগরিক ঐক্যর আহ্বায়ক মাহামুদুর রহমান মান্না, গণস্বাস্থ্য কেন্দ্রের প্রতিষ্ঠাতা ডা. জাফরুল্লাহ, বিকল্প ধারা বাংলাদেশের মহাসচিব ব্যারিস্টার ওমর ফারুক, গণফোরাম নেতা অ্যাডভোকেট সুব্রত চৌধুরীসহ অন্যান্য নেতারা।