সংসদে ডিজিটাল নিরাপত্তা বিল পাস

0
36

জাতীয় সংসদে আপত্তি উপেক্ষা করেই অবশেষে বহুল আলোচিত ডিজিটাল নিরাপত্তা বিল জাতীয় সংসদে পাস হয়েছে।
বুধবার সংসদে ডাক, টেলিযোগাযোগ ও তথ্যপ্রযুক্তি মন্ত্রী মোস্তাফা জব্বার বিলটি পাসের প্রস্তাব করেন। পরে মাত্র একটি সংশোধনী প্রস্তাব আমলে নিয়ে কণ্ঠভোটে বিলটি পাশ হয়।

বিলে সাইবার বা ডিজিটাল অপরাধের লঙ্ঘন জনিত অপরাধের জন্য ধরন বিশেষে ১, ৩, ৫, ৬, ৭, ১৪ বছর ও যাবজ্জীবন কারাদণ্ড এবং ৩ লাখ, ৫ লাখ ১০ লাখ ২৫ লাখ ১ কোটি, ৫ কোটি টাকা অর্থদণ্ডের বিধান করা হয়েছে। এ ছাড়া বিলের ১৪টি ধারায় অপরাধ অজামিনযোগ্য হিসেবে রাখা হয়েছে।

ডাক, টেলিযোগাযোগ ও তথ্যপ্রযুক্তিমন্ত্রী মোস্তাফা জব্বার বলেছেন, ‘মন্ত্রণালয় ২০১৫ সাল থেকে সংশ্লিষ্ট সবার কাছে বিলটি নিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করেছে। কেউ যদি সংসদীয় স্থায়ী কমিটির প্রতিবেদনটি পড়েন তাহলে তিনি দেখবেন যে সাংবাদিকদের সাথে এবিষয়ে কত আলোচনা করা হয়েছে।’

‘প্রতিটি ক্ষেত্রে আমরা সাংবাদিকদের মতামতকে সর্বোচ্চ গুরুত্ব দিয়েছি, তাদের মতামতের ভিত্তিতে আমরা প্রয়োজনীয় পরিবর্তন এনেছি,।

বিলে অফিসিয়াল সিক্রেসি অ্যাক্ট অন্তর্ভুক্ত করার বিষয়ে মোস্তাফা জব্বার বলেন, ‘এই আইনের অধীনে শাস্তি হওয়ার কোনো নজির নেই। এই আইন সংবাদপত্রকে দমন বা সংবাদপত্র শিল্পকে নিয়ন্ত্রণ করার জন্য নয়।’ ভবিষ্যতের যুদ্ধ ডিজিটাল যুদ্ধ হবে জানিয়ে মোস্তাফা জব্বার বলেন, ‘ওই যুদ্ধে প্রজাতন্ত্রকে সুরক্ষিত রাখতে হবে। আমরা যদি আমাদের দেশকে সুরক্ষিত না রাখি তাহলে আমাদের দায়ী হতে হবে।’

আইনটিকে দেশের জন্য ঐতিহাসিক উল্লেখ করে মোস্তাফা জব্বার আরও বলেন, ‘অনেক উন্নত দেশ নিয়মিতভাবে আইনটির অগ্রগতি নিয়ে জিজ্ঞাসা করেছে। এই আইন বিশ্বের অনেক দেশ অনুসরণ করবে। কারণ ডিজিটাল নিরাপত্তার জন্য বর্তমানে কোনো আইন নেই।’

সিঙ্গাপুরের ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের উদাহরণ দিয়ে মন্ত্রী বলেন, ‘সেটার সাথে তুলনা করলে যে কেউ দেখবেন যে আমরা আমাদের আইনটি বানিয়েছি স্বর্গ হিসেবে এবং ওই আইনটিকে (সিঙ্গাপুরের) মনে হবে কারাগার।’

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here