ঢাকাতেও থাকবে চার স্পিনার : রোডস

0
26

তাইজুল ইসলাম, মেহেদী হাসান মিরাজ, সাকিব আল হাসান ও নাঈম হাসান এই চারজন স্পিনারের কল্যাণে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে চট্টগ্রাম টেস্ট জিতেছিল বাংলাদেশ। বললে ভুল হবে না যে, স্পিনারদের ঘূর্ণিতে এই জয় এসেছে। টাইগারদের প্রথম টেস্টে চার স্পিনার খেলেছিল। এতেই মিলে সাফল্য। আর তাই ঢাকা টেস্টেও চারজন স্পিনারকে নিয়ে মাঠে নামবে বাংলাদেশ এমনটি ইঙ্গিত দিয়েছেন কোচ স্টিভ রোডস।

চট্টগ্রামে টেস্টে টাইগারদের সাফল্য যেহেতু স্পিনাদের কল্যাণে। সেহেতু পরবর্তী টেস্ট ম্যাচটি স্পিন নিয়েই খেলার প্রত্যয় বক্ত করেছেন টাইগার কোচ রোডস। এর আগেও জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে স্পিনাদের ঘূর্ণিতে ঢাকা টেস্ট জিতেছিল বাংলাদেশ। ফলে ক্যারিবিয়দের বিপক্ষেও স্পিন অ্যাটাক নিয়ের নামবে বাংলাদেশ। এই নিয়েই মূলত পরিকল্পনা বাংলাদেশের কোচের।

অবশ্য চার স্পিনারকে নিয়ে চট্টগ্রাম টেস্ট খেলায় কড়া সমালোচনা শুনতে হয়েছে টাইগারদের। তবে এসব কিছু নিয়ে ভাবছেন না কোচ রোডস। বরং টেস্ট ক্রিকেটের ইতিহাস টেনে তিনি বলেন, ‘ইতিহাস বলে টেস্টে বেশিরভাগ সময় দুই স্পিনার, তিন পেসার আর এক অল রাউন্ডার নিয়ে খেলা হয়ে আসছে। কিন্তু যখন ওয়েস্ট ইন্ডিজ চার পেসার এবং কোন স্পিনার ছাড়া নামত সেটা ছিল তাদের কৌশল। যদি আমরা মনে করি চার স্পিনারই ঠিক আছে, এটাই আমাদের কৌশল তাহলে সেটাই আমাদের অনুসরণ করা উচিত।’

ঢাকাতেও থাকবে চার স্পিনার

তাইজুল,মিরাজ,নাঈম ও সাকিব 

ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে ঢাকা টেস্ট চট্টগ্রামের মতো স্পিন সহায়ক পিচ হলে আবারও জাদু দেখাবে বাংলাদেশি স্পিনাররা। এমনটি প্রত্যাশা করছেন কোচ রোডস।  ‘ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে জয়টা সত্যিই দারুণ ছিল। ক্রিকেটারদের মতোই তাদের জন্য আমার অনেক সমীহ আছে। তারা পরের টেস্টে ঘুরে দাঁড়াতে মরিয়া থাকবে। আমাদের এজন্য প্রস্তুত থাকতে হবে। আমি চাই ২-০ তে জিততে।’

দুই ম্যাচের টেস্ট সিরিজ শেষ ম্যাচটি হবে ঢাকা মিরপুর শের-ই-বাংলা জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামে। ম্যাচটি শুরু হবে ৩০ নভেম্বর থেকে।

টেস্ট সিরিজের পর তিন ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজেও ওয়েস্ট ইন্ডিজ মুখোমুখি হবে বাংলাদেশ দল। আগামী মাসের ৯ ডিসেম্বর প্রথম ওয়ানডে ম্যাচে মাঠে নামবে দু’দল।

এরপর ১১ ডিসেম্বর দ্বিতীয় এবং ১৪ ডিসেম্বর সিলেটে তৃতীয় ওয়ানডে ম্যাচ খেলবে বাংলাদেশ। ওয়ানডে সিরিজের পর তিন ম্যাচের টি-টোয়েন্টি সিরিজ খেলবে বাংলাদেশ দল। যার প্রথমটি হবে সিলেট এবং পরের দুটি অনুষ্ঠিত হবে ঢাকায়।