টাঙ্গাইলে ৫ম শ্রেণীর ছাত্রীকে ধর্ষণ

0
44

টাঙ্গাইল মধুপুর উপজেলায় ৫ শ্রেণীর ছাত্রী (১১) কে ধর্ষণ করা হয়েছে। ঘটনাটি ঘটেছে উপজেলার পাহাড়িয়া অঞ্চল গাছাবাড়ী গ্রামে। মেয়েটি গাছাবাড়ী ফাতেমা রাণী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ৫ম শ্রেণীর ছাত্রী।

২৬ নভেম্বর সন্ধায় ঐ গ্রামের উপজাতীয় দরিদ্র পরিবারের মেয়ে এবং একই গ্রামের হানিফার বখাটে ছেলে আল আমিন (১৫) ফুসলিয়ে বাড়ি হতে ডেকে নিয়ে গ্রামের পাশে হাওদা বিলের ধারে ৫ বন্ধুকে পাহাড়া রেখে রাতভর ধর্ষণ করে।

এদিকে মেয়েটির পরিবার রাতভর খোজাখুঁজির পর গ্রামবাসীদেরকে নিঁখোজের বিষয়টি জানায়।
২৭ নভেম্বর সকালে ধর্ষক আলামিন অবস্থা বেগতিক দেখে মেয়েটিকে বাড়ী পৌঁছে দেয়।

ধর্ষিতার পরিবার মেয়ের মুখে ঘটনাবলী শুনে বিষয়টি গ্রামবাসীদের জানিয়ে প্রথমে তাকে মধুপুর হাসপাতালে পরে থানায় গিয়ে ধর্ষন মামলা করে (নং১৭,তাং-২৭-১১-১৮)।

মেয়েটির মা জানায়, আল আমিন মাদকসেবী লম্পট, মেয়ের পিএসসি পরীক্ষা শেষ হওয়ার খবর রেখে সুযোগ বুঝে লম্পট আল আমিন মেয়েকে ডেকে নিয়ে ন্যাক্কারজনক এ কাজ করেছে।

তিনি জানান ঘটনাটি মাননীয় সাংসদ ড. আ. রাজ্জাক কে হাসপাতালে পেয়ে তিনি নিজে অবগত করে বিচার চেয়েছেন। মাননীয় এমপি সাহেব মধুপুর থানাকে আইনগত ব্যবস্থায় অপরাধীকে দ্রুত গ্রেফতারের নির্দেশ দিয়েছেন।

মধুপুর থানার সেকেন্ড অফিসার এসআই মো. ফখরুল ইসলাম ঘটনা ও মামলার কথা স্বীকার করে আসামী গ্রেফতারের জোর প্রচেষ্টা চলছে বলে জানান।