শৈলকুপায় এসএসসি পরীক্ষার্থীর উপর দূর্বত্তদের হামলা, হাসপাতালে ভর্তি

0
31

জাহিদুর রহমান তারিক,ঝিনাইদহঃ ঝিনাইদহের শৈলকুপায় এক এসএসসি পরীক্ষার্থীর উপর দূর্বত্তরা অতর্কিত হামলা চালিয়েছে। হামলার শিকার সারুটিয়া গ্রামের এসএসসি পরীক্ষার্থী লিসন হাসান (১৭) নামের এক শিক্ষার্থী গুরুত্বর আহত হয়ে শৈলকুপা হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছে। হামলার ঘটনাটি ঘটেছে শনিবার সকাল আনুমানিক সাড়ে ৯টার দিকে কৃত্তিনগর ক্যানেলের ব্রীজ সংলগ্ন।

জানা গেছে, সারুটিয়া গ্রামের কৃষক গোলাম রসুলের ছেলে লিসন হাসান পুরাতন বাখরবা গ্রামের স্বপনের মোটরসাইকেল যোগে সকাল ৯টার দিকে কাতলাগাড়ী মাধ্যমিক বিদ্যালয় ভেন্যু কেন্দ্রে এসএসসি (ক্যাজুয়াল) পরীক্ষা দিতে যাচ্ছিল। পথিমধ্যে কৃত্তিনগর ক্যানেল ব্রীজের কাছে পৌছলে গোসাইডাঙ্গা গ্রামের ৮ নং ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য বাপ্পি হাসান ১০/১২জন লোক নিয়ে লিসনের গতিরোধ করে।

এসময় ওই ইউপি সদস্য বাপ্পির নেতৃত্বে তারা এসএসসি পরীক্ষার্থী লিসনকে লোহার রড ও হাতুড়ি দিয়ে এলোপাতাড়ি হামলা চালিয়ে রক্তাত্ব জখম করে ও মোটরসাইকেলটি ভাংচুর করে। মোটরসাইকেল চালক স্বপন ও হামলার শিকার লিসনের চিৎকারে স্থানীয় লোকজন ছুটে এলে হামলাকারীরা পালিয়ে যায়। স্থানীয় লোকজন তাকে উদ্ধার করে কাতলাগাড়ী বাজারে নিয়ে প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে পরীক্ষা কেন্দ্রে পাঠায়। লিসন রক্তাত্ব অবস্থায় পরীক্ষায় অংশগ্রহন শেষে গুরুত্বর অসুস্থ্য হয়ে পড়লে পরে তাকে শৈলকুপা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে। বর্তমানে তার অবস্থা আশংকাজনক বলে কর্তব্যরত চিকিৎসক জানিয়েছেন।

আহত এসএসসি পরীক্ষার্থী লিসনের চাচা মাসুদ জানান, হামলাকারীদের সনাক্ত করা হয়েছে। তাদের বিরুদ্ধে শৈলকুপা থানায় মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে। সারুটিয়া ইউপি চেয়ারম্যান মাহমুদুল হাসান মামুন এসএসসি পরীক্ষার্থীর উপর হামলার ঘটনায় তীব্র নিন্দা জানিয়ে হামলাকারীরা যে সামাজিক দলেরই হোক না কেন তাদের বিরুদ্ধে কঠোর আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করতে প্রশাসনের হস্তক্ষেপ কামনা করেন।

শৈলকুপা সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার তারেক আল্ মেহেদী জানান, হামলার বিষয়টি তিনি শুনে শৈলকুপা থানার ওসিকে মামলা রেকর্ডের নির্দেশ দিয়েছেন। হামলার ঘটনায় জড়িতদের বিরুদ্ধে কঠোর আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে। তবে এই মামলায় হয়রানীমূলকভাবে যেন কারো নাম জাড়ানো না হয় সে বিষয়টি গুরুত্ব দেয়ার জন্য ওসিকে নির্দেশনা দিয়েছেন।