নোলকের মালিকানা পেতে পুলিশের দ্বারস্থ নির্মাতা!

0
24

ঢালিউডের জনপ্রিয় নায়ক শাকিব খান ও অভিনেত্রী ববির আলোচিত ছবি ‘নোলক’-এর যেন জটিলতা কাটছেই না। ২০১৭ সালে শুরু হওয়া এ ছবির পরিচালক ছিলেন রাশেদ রাহা। পরে তাকে এ ছবি থেকে বাদ দেয়া হয়। তাকে বাদ দেয়ার পর ছবির প্রযোজক সাকিব ইরতেজা সনেট নিজেই পরিচালনা করেছেন। আর রাশেদের দাবি ছবির ৭০ ভাগ কাজ তিনি করেছেন। তাই এবার ছবিটির পলিচালকের মালিকানা পেতে থানায় ডায়েরি করেছেন রাশেদ।  

মঙ্গলবার দুপুরে থানায় ডায়েরি করেন রাশেদ রাহা। তিনি বলেন, ছবিটির পরিচালক আমি এটা সবাই জানেন। আমার অধিকার পেতে সঠিক পথে সব চেষ্টাই করে যাবো। তাই এখন চলচ্চিত্রের সংগঠনের পাশাপাশি আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীকে জানিয়ে রাখলাম। পরবর্তী সময়ে কোনো ধরনের ব্যক্তিগত আক্রমণের শিকার হলে যেন তাদের কাছে সাহায্য পাই। এই জন্যই এ সাধারণ ডায়েরি।

এর আগে ‘নোলক’ ছবিটির পরিচালক হিসেবে কার নাম থাকবে এ নিয়ে চলচ্চিত্রের দুটি সংগঠন জটিলতা মিটিয়ে দিতে কয়েক দফা আলোচনায় বসে। তখন পরিচালক ও প্রযোজককে ডেকে নোলকের পরিচালক হিসেবে দুজনের নামই থাকার প্রস্তাব দেয়া হয়েছিল।  শুরুতে রাশেদ রাহার নাম, পরে সাকিব ইরতেজা সনেটের। 

বামপাশ থেকে নির্মাতা রাশেদ রাহা, মাঝে শাকিব খান ও সর্বডানে ববি

বামপাশ থেকে নির্মাতা রাশেদ রাহা, মাঝে শাকিব খান ও সর্বডানে ববি

এর পরে তারা এ সিদ্ধান্তের বিষয়ে কিছুই জানায়নি।  এখন জানা গেলো মালিকানা ফেরত পেতে আইনী পথেই হাঁটছেন রাশেদ রাহা। রাশেদ রাহার সাধারণ ডায়েরির বিষয়টির তদন্ত কর্মকর্তা বাবলুর রহমান খান। তিনি রাশেদ রাহার প্রযোজকের সঙ্গে ছবির সমস্যা নিয়ে থানায় আসার কথা জানিয়েছেন গণমাধ্যমে। চলচ্চিত্রের সংগঠনগুলোর সহায়তায় এটাকে তারা মিমাংসা করার চেষ্টা করবেন বলেও জানিয়েছেন। 

এদিকে, রাশেদ রাহার সাধারণ ডায়েরি বিষয়ে এখনো কোন মন্তব্য করেননি প্রযোজক সাকিব ইরতেজা সনেট।

প্রসঙ্গত, ২০১৭ সালের ১ ডিসেম্বর ভারতের হায়দরাবাদে ‘নোলক’ ছবির শুটিং শুরু হয়। এর পাঁচ দিন পর ছবির নায়ক শাকিব খানের ‘ফার্স্ট লুক’ প্রকাশ করেন পরিচালক রাশেদ রাহা। শাকিব খান, ববি, মৌসুমী, ওমর সানি, তারিক আনাম খান ছাড়াও এই ছবির অভিনয়শিল্পীরা হলেন নিমা রহমান, রেবেকা, ভারতের রজতাভ দত্ত, সুপ্রিয় দত্ত, অমিতাভ ভট্টাচার্য প্রমুখ।