যুবলীগ নেতাকে ‘গলাকেটে’ হত্যার হুমকি, থানায় জিডি 

0
84
আজিজুল ইসলাম বারী, লালমনিরহাট প্রতিনিধিঃ ‘আগামীকাল যাকে যেখানেই পাবো, তার সেখানেই গলা কেটে ফেলবো।’ এভাবেই জেলা যুবলীগের ক্রীড়া সম্পাদক মজনু আলী শেখকে মোবাইল ফোনে হত্যার হুমকি দেওয়া হয়েছে বলে এক জেলা পরিষদ সদস্যের বিরুদ্ধে অভিযোগ উঠেছে।
এ ঘটনায় বুধবার (২১ অক্টোবর) রাত সাড়ে ১১টার দিকে জেলা যুবলীগের ক্রীড়া সম্পাদক মজনু আলী শেখ কালীগঞ্জ থানায় জেলা পরিষদের এক সদস্যের বিরুদ্ধে একটি সাধারণ ডায়েরি (জিডি) করেন।
অভিযুক্ত হুমকিদাতার নাম আবু আল মুসা কুতুব মিন্টু (৫৫)। তিনি পার্শ্ববর্তী আদিতমারী উপজেলার মহিষাশহরের মৃত নবির উদ্দিনের ছেলে ও জেলা পরিষদের সদস্য।
অভিযোগ ওঠে, জেলা পরিষদের সদস্য আবু আল মুসা কুতুব মিন্টু গত ১৯ অক্টোবর রাত ১১টার দিকে মজনু আলী শেখকে ফোন করে। ফোন করেই তাকে প্রাণনাশের হুমকি প্রাদান করে। এক পর্যায়ে তাকে ফোনে বলেন, ‘আগামীকাল যাকে যেখানেই পাবো, তার সেখানেই গলা কেটে ফেলবো।’এবং মহিষাশহরের মানুষ তাদের মাংস টুকরো করে খাবে।’ তার পরিবারকে নিয়ে অকথ্য ভাষায় গালাগালি করা হয় এসময়।
এদিকে ওই হুমকি দেওয়ার একটি কল রেকর্ড সামাজিক যোগযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়লে জেলা পরিষদ সদস্যের বিচার দাবি জানান এলাকাবাসী।
যুবলীগের ক্রীড়া সম্পাদক মজনু আলী শেখ বলেন, ‘পরিবারসহ আমাকে হুমকি প্রদান করা হয়েছে, তাই আইনের আশ্রয় নিয়েছি। একজন জেলা পরিষদের সদস্য হয়ে কীভাবে আমাকে প্রকাশ্যে গলাকেটে নেওয়ার হুমকি দেন? প্রশাসনের কাছে আমার জোর দাবি হুমকিদাতার দেশীয় অস্ত্রের সন্ধান ও আমাকে প্রাণনাশের হুমকির বিষয়টি তদন্ত করে তাকে আইনের আওতায় এনে কঠোর শাস্তির ব্যবস্থা করবেন। এ ঘটনার পর থেকে আমি ও আমার পরিবার চরম নিরাপত্তাহীনতা ও আতঙ্কে ভুগছি।’
অভিযুক্ত হুমকিদাতা আবু আল মুসা কুতুব মিন্টুর মোবাইল ফোনে যোগাযোগ করা হলে তিনি ব্যস্ততা দেখিয়ে ফোন কেটে দেন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here