রাস্তার দেড় শতাধিক গাছ কাটার প্রতিবাদে মানববন্ধন !

0
176
শাহিনুর ইসলাম প্রান্ত, লালমনিরহাট প্রতিনিধি : লালমনিরহাটের হাতীবান্ধা উপজেলার বড়খাতা ও ফকির পাড়া ইউনিয়নে বিভিন্ন রাস্তার দেড় শতাধিক সরকারী গাছ অবৈধ ভাবে কাটার প্রতিবাদে মানববন্ধন করেছেন স্থানীয় লোকজন। মানববন্ধনে অংশগ্রহন নেয়া লোকজনের অভিযোগ, ওই গাছ কাটার সাথে বড়খাতা ইউনিয়ন চেয়ারম্যান আবু হেনা মোস্তফা জামাল সোহেল জড়িত।
ওই চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে স্থানীয় থানাসহ জেলা ও উপজেলা প্রশাসনের নিকট একাধিক লিখিত অভিযোগ করলেও প্রশাসন রহস্যজনক কারণে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহন করছে না। মঙ্গলবার দুপুরে হাতীবান্ধা উপজেলা পরিষদ গেটে ‘সচেতন নাগরিক সমাজ’র ব্যানারে এ মানববন্ধনে ওই দুই ইউনিয়নের শতাধিক নারী ও পুরুষ অংশ নেয়।
মানববন্ধনে অংশনেয়া কারীরা জানান, বড়খাতা ইউনিয়ন চেয়ারম্যান আবু হেনা মোস্তফা জামাল সোহেল ওই দুই ইউনিয়নের দেড় শতাধিক বিভিন্ন প্রজাতের সরকারী গাছ অবৈধ ভাবে কেটে বিক্রি করেছে। এ ঘটনার প্রতিবাদ করা হলে চেয়ারম্যান ও তার লোকজন বিভিন্ন ভাবে হুমকি দিচ্ছেন। অবৈধ গাছ কাটার বিরুদ্ধে স্থানীয় থানাসহ জেলা ও উপজেলা প্রশাসনের নিকট একাধিক লিখিত অভিযোগ করা হয়। কিন্তু দীর্ঘ দিন অতিবাহিত হলেও প্রশাসন রহস্যজনক কারণে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহন করছে না।
আব্দুর রহমান নামে এক ব্যক্তি জানান, তিনি ওই চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে থানায় প্রথমে একটি জিডি করেন। পরে তাকে আবারও হুমকি দেয়ায় তিনি থানায় একটি লিখিত অভিযোগ করেছেন। কিন্তু দীর্ঘ দিনেও ব্যবস্থা গ্রহন করে নাই পুলিশ। ওই মানববন্ধনে উপজেলা আওয়ামী সেচ্ছাসেবক লীগের সাধারণ সম্পাদক সুলতান আহম্মেদ রাজন বক্তব্য রাখেন।
তবে বড়খাতা ইউনিয়ন চেয়ারম্যান আবু হেনা মোস্তফা জামাল সোহেল জানান, তিনি যথাযথ কৃর্তপক্ষের অনুমতি নিয়েই গাছ কেটেছেন। ওই গাছ গুলোর মালিক ইউনিয়ন পরিষদ এমন দাবী তার।
হাতীবান্ধা থানার অফিসার ইনচার্জ এরশাদুল আলম বলেন, বড়খাতা ইউনিয়ন চেয়ারম্যান আবু হেনা মোস্তফা জামাল সোহেলের বিরুদ্ধে অভিযোগ গুলো তদন্ত করা হচ্ছে। তদন্ত শেষে সত্যতা পেলে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here